Tuesday, May 21, 2024
spot_img
Homeজীবনের খুঁটিনাটিশরতে সাজপোশাক কেমন হবে?

শরতে সাজপোশাক কেমন হবে?

সাতকাহন২৪.কম

মিষ্টি নীল আকাশ আর শুভ্র মেঘের ভেলা। কাশবনে ফুলের সমারোহ, যেন তুলা ছড়িয়ে রেখেছে কেউ। আবহাওয়া খুব গরমও না, আবার ঠান্ডাও না। এটাই শরতের প্রকৃতি। প্রকৃতির এই আবেশ ছড়িয়ে যায় মানুষের মনেও।

আর আবহাওয়ার সঙ্গে মিলিয়ে সাজপোশাকটা হলেই তাে স্বস্তি পাবেন আপনি। এতে ব্যক্তিত্ববানও লাগবে। শরতের সময় ঢাকা স্বরকল্পন, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট ও বাংলাদেশ আবৃত্তি সমন্বয় পরিষদের সদস্য আবৃত্তিশিল্পী ফারিন তামান্না ইসলামের প্রথম পছন্দ সুতি ও খাদির পোশাক। সুতির শাড়ি এর মধ্যে বেশি প্রাধান্য পায়। এ ছাড়া উৎসব-অনুষ্ঠানে জামদানিও পরেন। আর খুব দৌড়ঝাঁপের কাজ হলে টপস, কুর্তি, পাঞ্জবি থাকে পছন্দের তালিকায়। বললেন, ‘শরতে প্রকৃতি ও আবহাওয়ার সঙ্গে মানাবে এমন সাজপোশাকই পরতে পছন্দ করি। এ সময় সাদা, নীল, হালকা গোলাপি ইত্যাদি হালকা রং বেছে নিই। আমার মনে হয়, এতে চোখ আরাম পায়। আর সাজের ক্ষেত্রে সাধারণত চোখকে গুরুত্ব দিই। একটু গাঢ় রঙের শ্যাডো ও কাজল দিয়ে স্মোকি লুক আনার চেষ্টা করি। অনেক সময় হালকা রঙের শ্যাডো দিয়ে মোটা করে আইলাইনার টানি। ঠোঁটে থাকে নুড বা ন্যাচারাল রঙের কোনো লিপস্টিক। হালকা গোলাপি, পিচ বা বাদামি রং ইত্যাদি।’

এ সময় পোশাকের সঙ্গে মানিয়ে অ্যান্টিক, কাঠ বা মাটির গয়না পরতে পছন্দ করেন তিনি। গলায় ভারী মালা পরলে কানে সাধারণত ছোট দুল থাকে। আবার কানে ভারী পরলে গলায় ছোট মালা। বলেন, ‘মানুষের রুচি ও ব্যক্তিত্ব কেমন, সেটি আসলে ফুটে ওঠে তার সাজসজ্জায়। এ বিষয়টি খুব খেয়াল রাখি। আর সাজপোশাকের ক্ষেত্রে সব সময় বাঙালিয়ানাকে ফুটিয়ে তুলতে চাই।’

শরতের সাজপোশাকের বিষয়ে বিন্দিয়া এক্সক্লুসিভ বিউটি কেয়ারের কর্ণধার শারমিন কচি বলেন, ‘এ সময় হালকা রঙের প্রাধান্য হলেই ভালো। প্রকৃতির সঙ্গে হালকা ভাবটাই যায়। আসলে প্রকৃতি বাড়তি কিছু পছন্দ করে না। যত হালকাভাবে সাজা যাবে, তত স্নিগ্ধও লাগবে।’

শরতের সাজে মেকআপের ক্ষেত্রে প্রথমে ত্বকে পরিষ্কার করে ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করতে হবে। ঘাম এড়াতে প্রাইমার লাগালে ভালো। হালকা সাজের জন্য ন্যাচারাল রঙের বিবি ক্রিম ব্যবহার করা যায়। এরপর ফেসপাউডার লাগিয়ে আই মেকআপে যাবেন। অতিরিক্ত রং ব্যবহার না করাই ভালো। চোখে মভ রঙের শ্যাডো এ সময় বেশ মানাবে। এ ছাড়া হালকা বাদামি রংও ব্যবহার করা যায়। হালকা স্মোকিভাবও আনা যেতে পারে চোখে। তবে চোখ যেভাবেই সাজান না কেন, ঘন করে মাশকারা দিতে ভুলবেন না।

ব্লাশনের ক্ষেত্রেও হালকা রং বেছে নিতে হবে। এ ক্ষেত্রে টিন্ট রং বেশ ভালো মানাবে। হাইলাইট বোনে হাইলাইটার ব্যবহার করবেন। এ ক্ষেত্রে হালকা সোনালি রং ব্যবহার করা যেতে পারে। এ সময় বেশি কন্টুর না করাই ভালো। এতে চেহারা কালো দেখায়। হালকা রঙের ম্যাট ও ড্রাই লিপস্টিকই এ সময় বেশি স্বস্তি দেবে। লিপস্টিকের ক্ষেত্রে বাদামি, গোলাপি, পিচ ইত্যাদি রং ব্যবহার করতে পারেন। আর শাড়ি পরলে কিন্তু টিপ দিতে ভুলবেন না। শরতের সাজপোশাকের ক্ষেত্রে এমনটাই পরামর্শ দিলেন রূপবিশেষজ্ঞ শারমিন কচি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -

Most Popular

Recent Comments