Thursday, May 30, 2024
spot_img
Homeমন জানালারোজকার ৬ অভ্যাস মনকে সুস্থ রাখবে ২০২৩-এ

রোজকার ৬ অভ্যাস মনকে সুস্থ রাখবে ২০২৩-এ

সাতকাহন২৪.কম ডেস্ক

আরেকটি নতুন বছর শুরু হয়ে গেলো। আতশবাজি, ফানুস উড়ানো, ঝলমলে আলোর ফোয়ারার ভেতর দিয়ে সারাবিশ্ব জুড়ে আগমন ঘটলো ২০২৩ সালের। নতুন বছর এলেই নতুন পরিকল্পনা করা হয়। এ বছর কী কী অর্জন করতে হবে, গত বছর কোন কাজটি করা হয়নি-এসবের তালিকা করা শুরু হয়ে যায়।

তবে কেবল কাজ করলেই কী চলবে? কাজের পাশাপাশি মনকেও যে সুস্থ রাখতে হবে। আর মন ভালো থাকলে, সুস্থ থাকলেই সবগুলো লক্ষ্য অর্জন করা সহজ হয়।মনোচিকিৎসকরা বলেন, মন ভালো না থাকলে বা বিষণ্ণতায় ভুগলে কাজ করার উদ্যম কমে যায় কয়েক গুণ। আর এর প্রভাব পড়ে অর্থনৈতিক, পারিবারিক ও সামাজিকভাবে। এ জন্য মনের যত্ন খুব জরুরি। তাই বছরের শুরু থেকেই মনকে সুস্থ রাখতে প্রতিদিন কিছু বিষয় মেনে চলুন।

ধ্যান বা শিথিলায়ন

মানসিক চাপ কমাতে ধ্যান বা শিথিলায়নকে গুরুত্ব দেওয়া হয়। এই কাজটি প্রতিদিনকার রুটিনে নিয়ে আসতে পারেন। সকালে ঘুম থেকে উঠে বা রাতে ঘুমাতে যাওয়ার আগে ধ্যান করুন। এখন ইউটিউবে ধ্যান করার অনেক গাইডলাইন পাওয়া যায়। এগুলো সব ভাষাতেই পাবেন। সেগুলোও অনুসরণ করা যেতে পারে।

কৃতজ্ঞ থাকুন

জীবনে সুখি হতে হলে কৃতজ্ঞ থাকার অভ্যাস জরুরি। না পাওয়ার কষ্ট আকড়ে না রেখে, জীবনে কী কী পেয়েছেন তার তালিকা তৈরি করুন। আর কৃতজ্ঞ থাকুন। একটু ভাবুন, আপনি যা পেয়েছেন অন্যের জীবনে হয়তো তার কোনোটাই নেই। প্রতিদিন অন্তত আধা ঘণ্টা কেবল নিজেকে সময় দিন। নিজের জীবনকে পর্যবেক্ষণ করুন।

 ছবি : সংগৃহীত
ছবি : সংগৃহীত

মন ভালো রাখতে শরীরের যত্ন নিন

মন ভালো রাখতে শরীরেরও যত্ন নিতে হবে। দৈনিক অন্তত আট ঘণ্টা ঘুমানো, স্বাস্থ্যকর খাদ্যাভ্যাস ও ব্যায়াম দেহকে সুস্থ রাখার মূল তিন চাবিকাঠি। আর দেহ সুস্থ থাকলে মনও ভালো থাকবে। এ কথা তো সবারই জানা।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহারে সতর্কতা

মোবাইল ফোন যেন আমাদের জীয়নকাঠি। ফেসবুক, টুইটার, ইন্সটাগ্রাম, টেলিগ্রাম ইত্যাদি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহারে আমাদের সময় চলে যায় অনেকটা। আশঙ্কার কথা হলো এসব ব্যবহারের কারণে এক সময় ভীষণভাবে উদ্বেগ ও বিষণ্ণতা বাড়তে পারে। তাই কতটুকু সময় এসব নিয়ে কাটাচ্ছেন খেয়াল রাখুন। পাশাপাশি ব্যবহারের সময় সীমিত করুন।

লিখুন

আবেগ ব্যবস্থাপনার ক্ষেত্রে ডায়রি লেখা একটি শক্তিশালী হাতিয়ার। দিনে অন্তত ১৫ মিনিট নিজের মনের অবস্থা লিখুন। কোন বিষয়টা আপনাকে কষ্ট দিচ্ছে, ভোগাচ্ছে, কী করতে পারেন সমস্যা থেকে বের হতে- লিখে প্রকাশ করতে পারেন। এটি আপনার মানসিক বৃদ্ধিকে সাহায্য করবে।

 ছবি : সংগৃহীত
ছবি : সংগৃহীত

হাসুন

হাসলে মন ও শরীর দুটোই ভালো থাকে। ভীষণ চাপে থাকলে হাসির কোনো বই পড়ুন বা টিভি সিরিজ দেখুন। এগুলো মানসিক চাপ কমাবে।

সূত্র : সিএনইটি

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -

Most Popular

Recent Comments